ফেনী
শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সকাল ১০:৩০
, ১২ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি
শিরোনাম:
মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য বিক্রী করায় মস্কো বেকারসসহ ৪ প্রতিষ্ঠানের জরিমানা দাগনভূঞা প্রেস ক্লাবের নির্বাচনে সভাপতি সুমন, সম্পাদক রনি ফেনীতে শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ ফেনীর প্রবীণ সাংবাদিক শাহজালাল রতনের দাফন দেড় বছরের সাজা এড়াতে ৭ বছর পালিয়ে থেকেও রক্ষা হলো না দাগনভূঞা লন্ডনী নাছের প্লাজা পরিদর্শনে মাসুদ  চৌধুরী এমপি  ফাজিলপুরে ব্যবসায়ীর স্বর্ণ চুরির ১০ দিনে রহস্য উদঘাটন, গ্রেফতার ৬ ফেনী আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে বিএনপি-জামাত সমর্থিত প্যানেল’র সংখ্যাগরিষ্ঠ জয় জিয়াউদ্দিন আহমেদ চৌধুরীর মৃত্যুতে খেলাঘর ফেনী জেলা কমিটির শ্রদ্ধাঞ্জলি ফের বাংলাদেশি ছবিতে ঋতুপর্ণা

পরশুরামে ভারতীয় নাগরিককে আটকে রেখে অর্থ ছিনতাই,ইউপি সদস্য গ্রেফতার 

ফেনীর পরশুরামে  বিলোনিয়া ইমিগ্রেশন সীমান্ত পথে বৈধ প্রক্রিয়ায় বাংলাদেশে আসার সময় এক ভারতীয় নাগরিকের কাছ থেকে নগদ টাকা ছিনতাই করার মামলায় উপজেলার বক্সমাহমুদ ইউনিয়নের ইউপি সদস্য ও আওয়ামী লীগ নেতা সরোয়ারুল করিম চৌধুরীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
বৃহস্পতিবার রাতে ইউপি সদস্য সরোয়ারসহ অজ্ঞাত ৪/৫জনকে আসামী করে মামলাটি দায়ের করার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে মামলার প্রধান আসামি ইউপি সদস্য সরোয়ার চৌধুরীকে গ্রেফতার করে।
সুত্রে জানা গেছে, ভারতের মতাই গ্রামের বাসিন্দা গোবিন্দ বিশ্বাস (৪০) নামের এক যুবক বৃহস্পতিবার দুপুরে পাসপোর্ট ভিসা দিয়ে বৈধ ভাবে পরশুরাম বিলোনিয়ার ইমিগ্রেশন দিয়ে বাংলাদেশ প্রবেশ করে।পরে সিএনজি যোগে পরশুরাম বাজার যাওয়ার পথে বাজারের কাছাকাছি পৌছলে সরোয়ারুল করিম চৌধুরী মেম্বারের নেতৃত্বে ৪/৫জন সন্ত্রাসী ওই যুবককে জোর পুর্বক একটি সিএনজিতে তুলে অজ্ঞাত একটি বাড়ীতে নিয়ে আটকে রেখে পিস্তত দেখিয়ে ভয়ভীতি দেখায় এবং লাঠি দিয়ে পিঠিয়ে গুরতর আহত করে।একপর্যায়ে তার সাথে থাকা নগদ বাংলাদেশী ৭০ হাজার টাকা ও ভারতীয় রুপি ১০ হাজার টাকা এবং একটি স্বর্নের গলার চেইন ছিনিয়ে নিয়ে ছেড়ে দেয়।
 এঘটনায় বাদী হয়ে ওই ভারতীয় যুবক বৃহস্পতিবার রাতে পরশুরাম থানায় মামলা দায়ের করে।
অভিযুক্ত বক্সমাহমুদ ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য সরোয়ারুল করিম চৌধুরী গ্রেফতারের আগে জানান, গোবিন্দ বিশ্বাস প্রকাশ বাপ্পার কাছে তিনি একটি মোটর সাইকেলের টাকা পাওনা ছিল সে টাকার জন্য তাকে আটক করা হয়েছিল। টাকা ফেরত দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিলে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।
পরশুরাম থানার ওসি সাইফুল ইসলাম জানান,পুলিশ ঘটনায় জড়িত অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারে চেষ্টা করছে।

ট্যাগ :

আরও পড়ুন


Logo