ফেনী
শনিবার, ২৮শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, দুপুর ১২:২৪
, ৫ই রজব, ১৪৪৪ হিজরি

মানসিক ভারসাম্যহীন দাবি পরিবারের

ফেনীতে প্রধানমন্ত্রীর ছবি ভাঙচু্রের অভিযোগে তরুণী আটক

ফেনীর সোনাগাজীতে আ.লীগের কার্যালয়ে ঢুকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি ভাঙচুরের অভিযোগে ছকিনা আক্তার (২০) নামের এক মানসিক ভারসাম্যহীন তরুণীকে আটক করেছে পুলিশ।

সোমবার রাতে সোনাগাজী পৌর শহরের জিরো পয়েন্টে উপজেলা আ’লীগের প্রধান কার্যালয়ে ভাঙচুরের এ ঘটনা ঘটে বলে দাবি করছেন স্থানীয় আ’ লীগের নেতা-কর্মীরা। তবে ছকিনা আক্তারের পরিবারের দাবি, তিনি মানসিক ভারসাম্যহীন। গত ৫থেকে ৬দিন ধরে তিনি অসংলগ্ন আচরণ করছেন।

পুলিশ জানায়, ছকিনা আক্তার ওই উপজেলার চরচান্দিয়া ইউনিয়নের দক্ষিণ চরচান্দিয়া এলাকার মৃত নুরুল আমিনের মেয়ে।এর আগে  ৬মাস ধরে স্বামীর সঙ্গে সৌদি আরবে ছিলেন ছকিনা। গত সপ্তাহেই দেশে ফিরেন সে।

উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার মেয়র রফিকুল ইসলাম বলেন, রাত সাড়ে ৮ দিকে ছকিনা হঠাৎ আ’ লীগের কার্যালয়ের দেয়ালে টানানো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি ভাঙচুর করেন। এ সময় কার্যালয়ের টেবিলের ওপর রাখা দুটি কাচের গ্লাসও ভেঙে ফেলেন সে। তাৎক্ষণিকভাবে দলীয় নেতা-কর্মীরা ছকিনাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।এ ঘটনার পর ছকিনার মা হাসিনা বেগম আ’ লীগের কার্যালয়ে গিয়ে মেয়েকে মানসিক ভারসাম্যহীন দাবি করে এ-সংক্রান্ত কিছু চিকিৎসাপত্র পুলিশকে দেখান।

হাসিনা বেগম বলেন, গত সপ্তাহে ছকিনা সৌদি আরব থেকে একা দেশে ফিরেছেন। এর পর থেকেই অসংলগ্ন আচরণ করছেন। ছকিনাকে কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের একটি মানসিক হাসপাতালে চিকিৎসা করানো হয়েছে। গত শনিবার বিকেলে ছকিনা বাড়িতে থেকে বেরিয়ে যান। এরপর থেকে তার খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।

ছকিনার মায়ের এসব দাবির বিষয়ে আওয়ামীলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম বলেন, পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে। ওই তরুণী যদি সত্যিই মানসিক ভারসাম্যহীন হন, তাহলে দলের পক্ষ থেকে কেউ থানায় অভিযোগ করবেন না। তবে যদি কোনো ষড়যন্ত্র বা ওই তরুণী সুস্থ ও সজ্ঞানে ভাঙচুর করে থাকেন, তাহলে তিনি বাদী হয়ে মামলা করবেন।

সোনাগাজী মডেল থানার ওসি খালেদ হোসেন বলেন, ছকিনার চিকিৎসাপত্র সংযুক্ত করে তার মা থানায় লিখিত আবেদন করেছেন। ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনা ও তদন্তের ভিত্তিতে এ বিষয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ট্যাগ :

আরও পড়ুন


Logo